চিলমারীতে হ্নদরোগ, ক্যান্সার ও ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য ঢেমশি চাষ শুরুকুড়িগ্রামের চিরমারীতে হ্নদরোগ, ক্যান্সার ও ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য উপকারী ফসল ঢেমশি চাষ শুরু হয়েছে।

উপজেলার পশ্চিম মনতোলা গ্রামের চরাঞ্চলের প্রায় ৯ একর পতিত জমিতে উপজেলা কৃষি দপ্তরের পরামর্শ নিয়ে ঢেমশি চাষ করেন এক শিক্ষার্থী মোঃ রাশেদুল ইসলাম। ভাতের বিকল্প হিসেবে ব্যাকহুইট বা ঢেমশি খাওয়া যাবে। এর ফলন একরে ১ থেকে ২ মেট্রিক টন বলে কৃষি বিভাগ দাবী করছেন।

বীজ রোপনের ৮০ থেকে ৯০ দিনের মধ্যে এই ফসল ঘরে তোলা যায়। গতকাল সকালে উপজেলা কৃষি অফিসার মোঃ শামসুদ্দিন মিঞা, কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার আহসান হাবীব, উপ-সহকারী কৃষি অফিসার মোঃ জাহিদ হোসেন আনছারী, আতাউর রহমান ও সাপ্তাহিক যুগের খর পত্রিকার সম্পাদক এস, এম নুরুল আমিন সরকার পশ্চিম মনতোলার চরে সরেজমিনে ঢেমশি ক্ষেত দেখতে যান। এই ক্ষেত থেকে পর্যাপ্ত পরিমাণে মধূ সংগ্রহ করা যাবে।

অর্থকরী এই ফসলটি ভাত, রুটি কিংবা ছাতু হিসেবে খাওয়া যাবে। এব্যাপারে উপজেলা কৃষি অফিসার বলেন, ঢেমশী হ্নদরোগ, ক্যান্সার ও ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য উপকারী ফসল। তিনি চরাঞ্চলের কৃষকদেরকে ঢেমশি চাষ করার পরামর্শ দিচ্ছেন।

[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য