ডোমারে বিদ্যুৎ সপ্তাহের উদ্বোধন“জলছে আলো চলছে দেশ, আগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ” এ প্রতিপাদ্য বিষয়য়কে সামনে রেখে নীলফামারীর ডোমার উপজেলায় বিদ্যুৎ সপ্তাহের উদ্বোধন করা হয়েছে। বিদ্যুৎ বিভাগ বিদ্যুৎ জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রনালয়ের নির্দেশনায় বিক্রয় ও বিতরন বিভাগ (বিউবো) ডোমার বিদ্যাৎ সপ্তাহটির আয়োজন করে।

সোমাবার সকাল ১১ টায় উপজেলা বিউবো কার্যালয় হতে ব্যানার ফেস্টুন সহকারে একটি র্যাকলি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন শেষে উক্ত কার্যালয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোছা: সাবিহা সুলতানার সভাপতিত্বে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক বসুনিয়া প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

দেবীগজ্ঞ মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ সারোয়ার মানিক, বিক্রয় ও বিতরন বিভাগ (বিউবো) ডোমারের নির্বাহী প্রোকেীশলী (ভারপ্রাপ্ত) আব্দুল মতিন, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রভাষক খায়রুল আলম বাবুল, উপ-সহকারী প্রোকৌশলী সারোয়ার জাহান সাইদি, উপজেলা একাডেমীক সুপারভাইজার সপিউল আলম প্রমূখ বক্তব্য রাখেন। বিভিন্ন কর্মসুচি পালনের মধ্য দিয়ে আগামী ১১ ডিসেম্বর বিদ্যুৎ সপ্তাহটি শেষ হবে।

ঠাকুরগাঁও জেলার ৩টি পৌরসভায় মেয়র পদে ১৭ জন,কাউন্সিলর পদে ১১০ এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ৩৫ জনকে  বৈধ ঘোষণা করেছে রিটার্নিং কর্মকর্তারা।কাউন্সিলর পদে ১৬ জন এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ২ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে।ঠাকুরগাঁও পৌরসভার ১১ নং ওয়ার্ডে একজনমাত্র প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করায় প্রার্থী নূর ইসলামকে বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় নির্বাচিত ঘোষনা করা হয়।

শনিবার মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই শেষে ঠাকুরগাঁওয়ে মেয়র পদে ৬ জন,কাউন্সিলর পদে ৪০ জন ও রানীশংকৈলে মেয়র পদে ৬ জন এবং কাউন্সিলর পদে ৩২ জন ও পীরগন্জ পৌরসভায় মেয়র পদে ৫ জন,কাউন্সিলর পদে ৩৮ জনের  মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়। ঠাকুরগাঁওয়ে কাউন্সিলর পদে ১৩ ঁএবং পীরগন্জ পৌরসভায় ৩ জন এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ২ জনের মনোনয়ন পত্র  বাতিল করা হয়।

এদিকে রোববার সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে যাচাই বাছাই শেষে ঠাকুরগাঁও পৌরসভার ১৫ জন,রানীশংকৈলে ১১ জন ও পীরগঞ্জ পৌরসভার ৯ জনের মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়।

ঠাকুরগাঁও পৌরসভায় বৈধ মেয়র প্রার্থীরা হলেন, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের ছোট ভাই বিএনপির প্রার্থী মির্জা ফয়সল আমীন, আওয়ামী লীগের প্রার্থী জেলা যুব মহিলা লীগের আহ্বায়ক তাহমিনা আখতার মোল্লা, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সোলেমান আলী সরকার, স্বতন্ত্র প্রার্থী জামায়াত নেতা আব্দুল হাকিম জিহাদী, বিএনপি থেকে পদত্যাগ করা স্বতন্ত্র প্রার্থী গোলাম সারোয়ার রঞ্জু চৌধুরী এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী মাহফুজুল ইসলাম।

পীরগন্জ পৌরসভায় বৈধ মেয়র প্রার্থীরা হলেন, আওয়ামীলীগ মনোনীত সাবেক মেয়র কসিরুল আলম, বিদ্রোহী প্রার্থী আলমগীর কবির, ,বিএনপি মনোনীত এবং বর্তমান পৌর মেয়র রাজিউর রহমান,উপজেলা জামাতের আমির নজরুল ইসলাম,জাপার সাবেক পৌর চেয়ারম্যান গোলাম হোসেন।

এছাড়াও রানীশংকৈল পৌরসভায় বৈধ মেয়র প্রার্থীরা হলেন, আওয়ামী লীগের আলমগীর সরকার, বিএনপির অধ্যাপক শাহজাহান আলী, জাতীয় পার্টির সামসুল আরেফিন, স্বতন্ত্র জামায়াত নেতা মোকারম হোসেন, প্রগতিশীল পার্টির প্রার্থী এনামুল হক ও স্বতন্ত্র প্রার্থী ইফতেখার আলম।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য