বিক্ষোভঢাকায় মুক্তমনার ব্লগার ও প্রকাশক দীপনকে হত্যাসহ ৩ ব্লাগারকে হত্যা চেষ্টার প্রতিবাদে রংপুরে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। রংপুর প্রেসক্লাবের সামনে রংপুরের সকল প্রগতিশীল রাজনৈতিক, সাংস্কৃতিক, পেশাজীবী ও ছাত্র সংগঠনের উদ্যোগে ওই সমাবেশে বক্তারা বলেন, প্রকাশ্যে দিবালোকে ঢাকায় মুক্তমনা ব্লগার ও প্রকাশক ফয়সাল আরেফিন দীপনকে শাহ আজিজ মার্কেটে কুপিয়ে হত্যাসহ লালমাটিয়ায় আরও ৩ ব্লগার ও প্রকাশক তারেক রহিম, টুটুলসহ রণদীপম সাহাকে গুলি করে কুপিয়ে হত্যা চেষ্টা করা হয়।

এর জন্য সরকারের বিভিন্ন গোয়েন্দা ও আইনপ্রয়োগকারী সংস্থাগুলোর ব্যার্থতাই দায়ী। ৫ জন মুক্ত চিন্তার মানুষ ব্লাগারকে হত্যার পরও কোন বিচার হয়নি। শুধু তাই নয় দেশে এখন যে হত্যাকান্ড হচ্ছে তার কোন বিচার হচ্ছে না। বিচারহীনতার রাজনীতি এখন দেশে চলছে। তাই যারা এই দেশকে জঙ্গি রাষ্ট্র বানাতে চায়, যারা যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বানচাল করতে চায় তারাই আজ এ সব হত্যাকান্ড সংঘঠিত করে এ দেশ সাম্প্রদায়ীক ও জঙ্গি রাষ্ট্র হিসেবে চিহ্নিত করার ষড়যন্ত্র করছে।

বিক্ষোভ সমাবেশে উন্নয়ন কর্মী মোশফেকা রাজ্জাকের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, শিক্ষাবিদ অধ্যাপক মলয় কিশোর ভট্টাচার্য, অধ্যাপক মোজাহার আলী, অধ্যাপক আব্দুস সোবহান, সাংস্কৃতিক কর্মী ও উদীচীর কেন্দ্রীয় নেতা ড.শ্বশত ভট্টাচার্য, চিকিৎসক নেতা ডা. মামুনুর রহমান, ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির জেলা সভাপতি ডা. মাফিজুল ইসলাম মান্টু, মহিলা পরিষদ জেলা সম্পাদক হামনা চৌধুরী, বাসদ নেতা আব্দুল কুদ্দুস, সিপিবি জেলা সম্পাদক শাহীন রহমান, কৃষক সমিতির নেতা আফজালুর রহমান, সাংবাদিক ও সাবেক ছাত্র নেতা মাহবুব রহমান হাবু, ছাত্রফ্রন্ট নেতা আশিকুর রহমান প্রমূখ।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য