adalot2আজহারুল আজাদ জুয়েল, দিনাজপুরঃ বাড়ি ভাংচূর, লুটপাট ও হত্যা প্রচেষ্টার একটি  মামলায় ৪ গৃহবধূসহ ১০জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার দিনাজপুরের ১ম শ্রেণীর ম্যাজিষ্ট্রেট আমলী আদালত-৫ পার্বতীপুর এই গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি করেন।

আদালত সূত্রে জানা যায়, পার্বতীপুরের ছোট রামচন্দ্রপুর নিবাসী মৃত আলিমুদ্দিনের পুত্র মোঃ জয়নাল আবেদীন উপরোক্ত আদালতে ১৪৭/৪৪৮/৩৭৯/৩২৩/৩০৭/৪২৭/৩৮০/৩৫৪/১১৪/৫০৬(।।)/৩৪ ধারায় গতকাল মঙ্গলবার একটি মামলা দায়ের করেন।

মামলার আরজিতে তিনি অভিযোগ করেন যে, তিনি তার নিজ মালিকানাধীন বাড়ি বিক্রি করতে রাজি না হওয়ায় তার প্রতিবেশি ছোট রামচন্দ্রপুর নিবাসী মোঃ সোলায়মান মাষ্টার (৬০) সংঘবদ্ধভাবে গত ২২ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে ১০টায় গলা টিপে তাকে হত্যার চেষ্টা করে এবং  এলোপাতাড়িভাবে ধারালো অস্ত্র ও লাঠির আঘাতে তার বাড়ি-ঘর ভাংচুর করে।

তারা বাড়ির ভিতর হতে গরু বিক্রির নগদ ৬০হাজার টাকা এবং রঙ্গিন টিভি, স্বর্ণলংকার ও আসবাবপত্র সহ প্রায় ২ লাখ টাকা মূল্যের মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। যাওয়ার সময় তারা বাদী ও তার পরিবারকে হত্যার হুমকী দেয়।

আদালত বাদীর বক্তব্য শ্রবণ শেষে সোলায়মান মাষ্টারসহ ১০ আসামীর বিরুদ্ধে পরোয়ানা জারি করেন। অন্য আসামীরা হলেন সোলায়মান মাষ্টারের স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৫০), মৃত ওসমান গনির ৪ পুত্র বেলাল হোসেন (৪০), দুলাল হোসেন (৩৫), জয়নাল আবেদীন (৫৫)ও মোঃ হেলাল (৩৬), সোলায়মান মাষ্টারের জামাই আব্দুল কাইয়ুম (৩৮), মেয়ে লাকি (২৭), জয়নালের স্ত্রী হামিদা বেগম (৪০) এবং বেলালের স্ত্রী ছাহেরা বেগম। বাদীপক্ষে এড. আলহাজ্ব মোঃ রাজা মামলা পরিচালনা করেন। আসামীগণ সবাই পার্বতীপুরের ছোট রামচন্দ্রপুর নিবাসী।
[ads1]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য