07. Turkeyইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : তুরস্কের বিশেষ বাহিনীর দু’টি ইউনিট উত্তর ইরাকে ঢুকে পড়েছে। নিষিদ্ধ ঘোষিত বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন কুর্দিস্তান ওয়ার্কার্স পার্টি বা পিকেকে’র জঙ্গিদের ‘ধরার’ লক্ষ্যে এসব সেনা ইরাকে ঢুকেছে বলে আঙ্কারা জানিয়েছে। তুরস্কের পূর্বাঞ্চলে পিকেকে গেরিলাদের আলাদা দু’টি হামলায় ১৬ জন সৈন্য ও ১৪ জন পুলিশ নিহত হওয়ার পর এ ব্যবস্থা নিলো আঙ্কারা।

পূর্বাঞ্চলীয় ইগদির এলাকায় তুর্কি পুলিশ সদস্যদের বহনকারী একটি মিনিবাসে শক্তিশালী বোমা হামলায় ১৪ পুলিশ নিহত হয়। এর দু’দিন আগে পূর্বাঞ্চলীয় হক্কারি এলাকার দাগলিকা শহরে রাস্তায় পুঁতে রাখা আলাদা দু’টি বোমা হামলায় ১৬ সৈন্য নিহত হয়। তুরস্কের একটি সরকারি সূত্র মঙ্গলবার জানিয়েছে, সর্বসাম্প্রতিক হামলায় জড়িত পিকেকে সন্ত্রাসীদের অনুসরণ করতে তুর্কি নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা ইরাকে ঢুকেছে।

সূত্রটি জানিয়েছে, সন্ত্রাসীরা যাতে পালাতে না পারে সেজন্য সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্য এ অভিযান চালানো হবে এবং এরপর সেনারা দেশে ফিরে যাবে। সেনাবাহিনীর নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি সূত্রের বরাত দিয়ে তুরস্কের দোগান বার্তা সংস্থা জানিয়েছে, তুর্কি সেনাবাহিনীর দু’টি ব্যাটালিয়ন সীমান্ত অতিক্রম করেছে।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য